• বুধবার, ২৭ অক্টোবর ২০২১, ১২ কার্তিক ১৪২৮

করুণা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃতদের এখন ঠাই হচ্ছে গণকবরে।

 করুণা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃতদের এখন  ঠাই  হচ্ছে গণকবরে।

বিশ্বজুড়ে এখন চলছে মৃত্যুর মিছিল।অজানা এক গন্তব্যে পূর্ব থেকে পশ্চিম উত্তর থেকে দক্ষিণ পৃথিবীর সকল প্রান্তে বাজছে করুন এক বিহগল।চারিদিকে শুধু লাশ আর লাশ। স্বামী নেই স্ত্রীর পাশে, সন্তান নেই মা বাবার পাশে।পৃথিবীর সর্বকনিষ্ঠ ১০ মাস বয়সী শিশু করোনায় আক্রান্ত হয়ে চট্টগ্রামের আন্দরকিল্লা জেনারেল হাসপাতালের বেডে চটপট  করছে।বাংলাদেশে সর্বপ্রথম ৮ মার্চ ২০২০ সালে করোনা শনাক্ত হয় তিনজন রোগীর দেহে। এরই ধারাবাহিকতায় গত ১৯ এপ্রিল নতুন করে

আক্রান্ত হয় ৩১২ জন, ২০ এপ্রিল আক্রান্ত হয় ৪৯২ জন,গত ২৪ ঘন্টায় নমুনা সংগ্রহ হয় ৩১২৮  জনের এবং গত ২৪ ঘন্টায় অর্থাৎ ২১ এপ্রিল শনাক্ত হয় ৪৩৪ জন, মৃত্যু হয় ৯ জন,সুস্থ হয় দুইজন,এ পর্যন্ত মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৩৩৮২ জন, চিকিৎসাধীন ৩১৮৫ জন, মোট সুস্থ হয় ৮৭ জন, মোট মৃত্যু ১১০ জন। বিশ্বজুড়ে করুণা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃতদের এখন  ঠাই  হচ্ছে গণকবরে। অনেক দেশে আবার তাও না, কবর কিংবা শশানের কয়লা অনেকের ভাগ্যে জোটছ না।বৈশ্বিক মহামারির  এমন পরিস্থিতিতে বাংলাদেশে প্রাণঘাতী এই মরণ ব্যাধি করোনা ভাইরাসের চরম পরিণতি থেকে রক্ষা পেতে এখনই সকলকে সরকারি নির্দেশনা ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা অনিবার্য।নচেৎগণকবরে ও শেষ ঠিকানা হবে না।

headadmin